মালদায় বৈদ্যুতিক চুল্লি সম্পূর্ণভাবে বন্ধ. মালদা জেলায় মহাশ্মশান সাদল্লাপুর। জেলায়একমাত্র বৈদ্যুতিক চুল্লি রয়েছে এখানে।
কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রয়াত গনি খান চৌধুরী উদ্যোগে বেশ কয়েক বছর আগে এই বৈদ্যুতিক চুল্লি স্থাপন হয়।
এর পরবর্তী সময় এর পাশাপাশি আরও একটি চুল্লি স্থাপন করা হয়।
বর্তমানে একটি চুরির সম্পূর্ণভাবে বন্ধ হয়ে গেছে অপর চুল্লি অবস্থা খুব খারাপ।
এই মুহূর্তে শব দাহ করার সময় যে চিমনি দিয়ে ধোয়া বেরোনোর কথা সেখান দিয়ে আর ধোঁয়া বেরোচ্ছে না ধোঁয়া বেরিয়ে যাচ্ছে অন্য দিক দিয়ে এর কারণে এলাকায় ছড়িয়ে পড়ছে ধোয়া দুর্গন্ধ ইতিমধ্যেই অনেকের শ্বাসকষ্ট শুরু হয়েছে এলাকায় দূষিত হচ্ছে পড়ছে । শব দাহ করতে এসে এই দূষিত ধোয়ার কারণে অনেকেই অসুস্থ হয়ে পড়ছেন। তেমনই এক ব্যক্তির কথায় উঠে আসলো দীর্ঘদিন এই ধরনের অবস্থায় পড়ে আছে বৈদ্যুতিক চুল্লি অবস্থা যে কোন মুহূর্তে সম্পূর্ণভাবে বন্ধ হয়ে যেতে পারে এই চুল্লির কাজ তাই তারা দৃষ্টি আকর্ষণ করছেন মিডিয়ার মাধ্যমে জেলা প্রশাসনের কাছে খুব তাড়াতাড়ি এই খারাপ অবস্থা কে সাড়িয়ে তুলে পুনরায় পূর্বের রূপ দেওয়ার জন্য এছাড়াও আরও একটি বৈদ্যুতিক চুল্লি খারাপ হয়ে আছে সেটা কেও সারানোর দাবি জানান জেলা প্রশাসনের কাছে। এখানে
দায়িত্বে থাকা যে সমস্ত ব্যক্তিরা আছেন তাদেরও দাবি একাধিবার জেলা পরিষদের জানালেও এখনো পর্যন্ত কোনো উদ্যোগ নেননি চুলি সারানোর কাজের তারাও জানান তাদের কাজ করতেও প্রচুর অসুবিধার সম্মুখীন হতে হচ্ছে প্রতিদিন। জয়দীপ দাস